Home / তথ্য প্রযুক্তি / বিদেশি পণ্যের ইউজার নয়, দেশি পণ্য চাই : পলক

বিদেশি পণ্যের ইউজার নয়, দেশি পণ্য চাই : পলক

চট্টগ্রাম, ৯ মে (অনলাইনবার্তা): তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, আমরা শুধু বিদেশি পণ্য ব্যবহার করবো না। এখন দেশি পণ্যের মার্কেট তৈরি করতে চাই। যা লোকাল মার্কেট ছাড়িয়ে বিদেশের মার্কেট দখল করবে।

রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত এক কনফারেন্সে তিনি এসব কথা বলেন।

বিজটেক বিটুবি কনফারেন্স শুরু করার লক্ষে সরকারের আইসিটি ডিভিশন ও বেসিস এই কনফারেন্সের আয়োজন করে।

এতে অন্যদের মধ্যে আইসিটি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব হারুন অর রশীদ, বেসিস সভাপতি শামীম আহসান, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অ্যাকসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রকল্পের কর্মকর্তা নাঈমুজ্জামান মুক্তা, বেসিসের সিনিয়র সহ-সভাপতি রাসেল টি আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

প্রতিমন্ত্রী পলক বলেন, বাংলাদেশ আর তলাবিহীন ঝুড়ি নেই। ডিজিটাল বাংলাদেশ হিসেবে উন্নয়নের রোল মডেলে পরিণত হয়েছে। বিদেশে এখন মাথা উঁচু করে বলতে পারি বাংলাদেশ থেকে এসেছি।

আইসিটিতে আমরা অন্য কারো মডেল ফলো করি না। বরং আমাদের সাফল্যের মডেল তারা ফলো করে। এতে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি ভূমিকা রয়েছে। এ ধারা অব্যাহত রাখতে চাই।

তিনি বলেন, ই-কমার্স সাইট করছি। এই প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে লাখ লাখ মানুষের কর্মসংস্থান হবে। আজকে যত সাফল্যের কথা আমরা শুনি, তাদের সবগুলোই আগে লোকাল মার্কেট দখল করেছে। আমরা সেটাই ফলো করতে চাই। কারণ, আমাদের ৮তম বৃহত্তর মার্কেট রয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, এই এগিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রী তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টার বলিষ্ঠ নেতৃত্ব রয়েছে। যেজন্য আমরা আইডিয়ার দিক অনেক ক্ষেত্রে এগিয়ে আছি।

পলক বলেন, শুধু বিদেশি পণ্যের ইউজার নয়, আমরা নিজেদের পণ্য তৈরি করতে চাই। লোকাল ইন্ডাস্ট্রিকে ওয়ার্ল্ড ওয়াইড নিতে চাই। বিজটেক এর মাধ্যমে বিলিয়ন ডলারের লোকাল মার্কেট এক্সপ্লোর করতে চাই।

শামীম আহসান বলেন, আমরা কি সারাজীবন ডিলারশিপ নিয়েই থাকব নাকি আমাদের লোকাল পণ্য পৃথিবীব্যাপী ছড়িয়ে দেব? তাই এ বিষয়গুলো নিয়ে সিদ্ধান্ত নিতেই ওই বিজটেক বিটুবি কনফারেন্সেরর আয়োজন করা হচ্ছে।

নাঈমুজ্জামান মুক্তা বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তোলার পেছনে নিজেদের সামর্থ্য নিয়েই আমরা কাজ করছি। ইতোমধ্যে আইসিটি নিয়ে মালদ্বীপের সঙ্গে অভিজ্ঞতা শেয়ারের সমঝোতা চুক্তি হয়েছে। অভিজ্ঞতা শেয়ারের জন্য আরো নয়টি দেশ আগ্রহ প্রকাশ করছে। তাই আগামী দিনে আইসিটির মাধ্যমে ব্যাপক পরিবর্তন আনা সম্ভব।

রাসেল টি আহমেদ বলেন, বিজটেক কনফারেন্সের মূল ফোকাস লোকাল মার্কেট। ক্রেতা-বিক্রেতার সম্পর্ক আরও উন্নয়ন করাই এর লক্ষ্য। এক্ষেত্রে আইসিটি নিডস এবং সল্যুশন নির্ধারণের চেষ্টা করা হবে।

অনুষ্ঠানে বেসিসের মহাসচিব উত্তম কুমার পাল বলেন, বিজটেক বিটুবি কনফারেন্স আগামী ২১ মে শুরু হবে। যা শেষ হবে ২২ মে।

উত্তম কুমার বলেন, বিজটেক বিটুবি কনফারেন্স প্রথম ভিন্নধর্মী বিজনেস সল্যুশন প্রদর্শনী। যেখানে ব্যাংকিং ও ফিন্যান্স, শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও তৈরি পোশাক খাতের ওপর ইন্ডাস্ট্রি পেপার উপস্থাপন, আলাদা ৪টি গোলটেবিল বৈঠক, প্রদর্শনী এবং বিটুবি মিটিং অনুষ্ঠিত হবে। যা আয়োজিত হবে সোনারগাঁও হোটেলে। কেবল যারা রেজিস্ট্রেশন করবেন তারা এখানে অংশ নেবেন।

x

Check Also

আজ৩১ উপজেলায় শতভাগ বিদ্যুতায়ন উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ বৃহস্পতিবার ২৭ আগস্ট ১৮ জেলার ৩১টি উপজেলার শতভাগ ...