Home / আন্তর্জাতিক / ভার্জিনিয়ায় দাঙ্গা: ট্রাম্প পরিষদ থেকে ৩ সিইওর পদত্যাগ

ভার্জিনিয়ায় দাঙ্গা: ট্রাম্প পরিষদ থেকে ৩ সিইওর পদত্যাগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

ভার্জিনিয়ার শার্লটসভিল শহরে উগ্র শ্বেতাঙ্গ জাতীয়তাবাদীদের দাঙ্গার ঘটনায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দুর্বল প্রতিক্রিয়া জানানোয় তার উপদেষ্টা পরিষদ ‘আমেরিকান ম্যানুফ্যাকচারিং কাউন্সিল’ থেকে পদত্যাগ করেছেন তিনটি বড় কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও)।

এরা হলেন- ইনটেল কর্পোরেশনের সিইও ব্রায়ান ক্যাজানিচ, মেরক অ্যান্ড কো ইঙ্ক ফার্মার কেনেথ ফ্র্যাজিয়ার ও আন্ডার আর্মার ইঙ্কের কেভিন প্ল্যাংক।

স্থানীয় সময় সোমবার এক ব্লগ পোস্টে ইনটেলের সিইও ব্রায়ান বলেন, আমাদের বিভক্ত রাজনৈতিক পরিবেশ যে গুরুতর ইস্যু (শার্লটভিলের দাঙ্গা) তৈরি করছে তার ব্যাপারে মনযোগ আকর্ষণ করতে আমি পদত্যাগ করেছি।

ওষুধ প্রস্তুতকারক মেরকে সিইও আফ্রিকান-আমেরিকার কেনেথ জানান, শ্বেতাঙ্গ জাত্যাভিমানী (হোয়াইট সুপারিম্যাসিস্ট) এবং পাল্টা প্রতিবাদকারীদের মধ্যে সহিংসতার ঘটনার পর প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের প্রতিক্রিয়ার কারণে তিনি উপদেষ্টা পরিষদ থেকে সরে গেছেন।

এছাড়া অসহিষ্ণুতা ও উগ্রপন্থার বিরুদ্ধে অবস্থান নেয়া প্রয়োজন বলে উল্লেখ করেছেন তিনি।

আন্ডার আর্মারের সিইও প্ল্যাঙ্ক এক টুইট বার্তায় ট্রাম্পের উপদেষ্টা পরিষদ ছাড়ার ঘোষণা দেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা নিজেদের সম্ভাবনা এবং আমিরকার উৎপাদন উন্নত করার সামর্থের ব্যাপারে অটল রয়েছি। যাই হোক, আন্ডার আর্মার উদ্ভাবন এবং ক্রীড়ার কাজে লিপ্ত রয়েছে, মোটেই রাজনীতি নিয়ে নয়।’

ট্রাম্পকে সমর্থন করার জন্য গত শীতে প্ল্যাঙ্কের সমালোচনা করেছিলেন আন্ডার আর্মারের সঙ্গে সম্পৃক্ত কয়েকজন বড় তারকা খেলোয়াড়।

এদিকে শার্লটসভিলের দাঙ্গার ঘটনায় এক কোটি ২৫ লাখ শ্রমিকের ইউনিয়নগুলোর ফেডারেশন এএফএল-সিআইও জানিয়েছে, ট্রাম্পের উপদেষ্টা পরিষদ থেকে সরে যাওয়ার বিষয়টি তারাও বিবেচনা করছে।

উল্লেখ্য, চরমপন্থী শ্বেতাঙ্গদের মিছিল-সমাবেশকে কেন্দ্র করে শনিবার শার্লটসভিল শহরে পাল্টা বিক্ষোভ ডাকলে উভয় পক্ষে দাঙ্গা বেধে যায়। এতে অন্তত তিনজন নিহত ও অর্ধশত আহত হয়।

ওই ঘটনার বিষয়ে বিলম্বে বিবৃতি দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এছাড়া তিনি বিবৃতিতে সংঘাতে জড়িয়ে পড়া ‘সব পক্ষের’ সমালোচনা করলেও কট্টর-ডানপন্থী হোয়াইট সুপারম্যাসিস্ট, নিউ নাজি এবং কু ক্ল্যাক্স ক্ল্যানের নাম উল্লেখ করেননি।

এ কারণে নিজ দল রিপাবলিকান পার্টি ও প্রতিদ্বন্দ্বী ডেমোক্রেট দলের সিনিয়র নেতাদের তোপের মুখে পড়েন ট্রাম্প। যার জের ধরে ট্রাম্পের উপদেষ্টা পরিষদের তিন সদস্যও সরে গেলেন।
কাওছার আক্তার মুক্তা // এসএমএইচ// ১৬ আগস্ট ২০১৭

x

Check Also

আরো আট নারী ও শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ

সাভারের আশুলিয়ায় বন্ধুদের সঙ্গে বেড়াতে গিয়ে স্থানীয় একটি কিশোর গ্যাংয়ের সদস্যরা দুই ...